নির্বাচনী প্রচার-প্রচারণায় জমে উঠেছে যশোর।

0
32
দৈনিক শিক্ষাবার্তা পত্র‌িকার সাংবাদিক হতে চান ?
যশোর জেলা প্রতিনিধিঃ ১২ ডিসেম্বর ২০১৮।নির্বাচনী প্রচার-প্রচারণায় জমে উঠেছে যশোর।
আসন্ন একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের প্রচার-প্রচারণায় নেমে পড়েছেন যশোরের ছয়টি সংসদীয় আসনের চূড়ান্ত প্রার্থীরা। সোমবার প্রতীক বরাদ্দ পাবার পরপরই পুরোদমে ভোটের মাঠে নেমে পড়েছেন প্রার্থী-সমর্থকরা। ফলে শুরু হয়ে গেল ভোটের প্রচার যুদ্ধের আনুষ্ঠানিকতা। গতকাল মাইকে করে নির্বাচনী প্রচারণা চালানোর পাশাপাশি প্রচার মিছিল বের হতে দেখা যায়।
নির্বাচনী আচরণ বিধি অনুযায়ী, ২৮ ডিসেম্বর রাত ১২টা পর্যন্ত প্রার্থীরা তাদের নির্বাচনী প্রচার কাজ চালাতে পারবেন। সেই অর্থে প্রার্থীরা এবার ১৯ দিন প্রচার-প্রচারণা চালানোর সুযোগ পাচ্ছেন। দুপুর ২টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত মাইকে প্রচার চালানো যাবে। তবে একই নির্বাচনী এলাকাতে কোন অবস্থাতেই তিনটির বেশি লাউড স্পিকার ব্যবহার করা যাবে না।
এদিকে গতকাল যশোরের রিটার্নিং কর্মকর্তা ও জেলা প্রশাসক আব্দুল আওয়াল চূড়ান্ত প্রার্থীদের প্রতীক বরাদ্দ করেছেন। যশোর-১ বর্তমান সংসদ সদস্য ও জেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি শেখ আফিল উদ্দিন নৌকা, বিএনপির সাবেক কেন্দ্রীয় দপ্তর সম্পাদক মফিকুল হাসান তৃপ্তি ধানের শীষ, ইসলামী আন্দোলনের বখতিয়ার রহমান হাতপাখা এবং জাকের পর্টির সাজেদুর রহমান ডাবলু গোলপ ফুল প্রতীক পেয়েছেন।
যশোর-২ মেজর জেনারেল (অব.) ডা. নাসির উদ্দিন নৌকা, সাবেক সংসদ সদস্য জামায়াতের মুহাদ্দিস আবু সাঈদ মোহাম্মদ শাহাদাৎ হুসাইন ধানের শীষ, জাতীয় পার্টির ফিরোজ শাহ লাঙল, বাংলাদেশ জাতীয় পার্টির প্রার্থী বিএম সেলিম রেজা কাঁঠাল, বাংলাদেশ সমাজতান্ত্রিক দল-বাসদের মোহাম্মদ আলাউদ্দিন মই, ইসলামী আন্দোলনের মোহাম্মদ আসাদুজ্জামান হাতপাখা, গণফোরামের এম আসাদুজ্জামান উদীয়মান সূর্য প্রতীক বরাদ্দ পেয়েছেন।
যশোর-৩ আসনে বর্তমান সংসদ সদস্য আওয়ামী লীগ মনোনীত কাজী নাবিল আহমেদ নৌকা, বিএনপির খুলনা বিভাগীয় সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক সাবেক মন্ত্রী তরিকুল ইসলামের ছেলে অনিন্দ্য ইসলাম অমিত ধানের শীষ, জাতীয় পার্টির জাহাঙ্গীর আলম লাঙল, জাকের পার্টির মনিরুজ্জামান মনির গোলাপ ফুল এবং জেএসডির যশোর জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ বিপ্লব আজাদ তারা প্রতীক পেয়েছেন।
যশোর-৪ আসনে বর্তমান সংসদ সদস্য রনজিত কুমার রায় নৌকা, বাঘারপাড়া উপজেলা বিএনপির আহবায়ক ইঞ্জিনিয়ার টিএস আইয়ুব ধানের শীষ, জাতীয় পার্টির জেলা সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট জহুরুল হক জহির লাঙল, ইসলামী আন্দোলনের নাজমুল হুদা হাতপাখা, স্বতন্ত্র প্রার্থী লে. কর্নেল (অব.) এম শাব্বির আহমেদ কাঁঠাল, বিকল্পধারার নাজিম উদ্দিন আল আজাদ কুলা, বাংলাদেশ পিপলস পার্টির মোহাম্মদ আলী জিন্নাহ আম এবং জাকের পার্টির লিটন মোল্লা গোলাপফুল প্রতীক পেয়েছেন।
যশোর-৫ বর্তমান সংসদ সদস্য স্বপন ভট্টাচার্য্য নৌকা, জমিয়তে উলামায়ে ইসলামের একাংশের সভাপতি সাবেক সংসদ সদস্য মুহাম্মদ ওয়াক্কাস ধানের শীষ, মণিরামপুর উপজেলা জাতীয় পার্টির সভাপতি এমএ হালিম লাঙল, ইসলামী আন্দোলনের ইবাদুল হক খালাসি হাতপাখা, স্বতন্ত্র প্রার্থী আওয়ামী লীগ নেতা কামরুল হাসান বারী ট্রাক, জাতীয় গণতান্ত্রিক পার্টি-জাগপার কেন্দ্রীয় সহ-সভাপতি নিজাম উদ্দিন অমিত হুক্কা এবং জাকের পার্টির রবিউল ইসলাম গোলাপ ফুল প্রতীক পেয়েছেন।
যশোর-৬ জনপ্রশাসন প্রতিমন্ত্রী ইসমাত আরা সাদেক নৌকা, বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা আবুল হোসেন আজাদ ধানের শীষ, জাতীয় পার্টির মাহবুব আলম লাঙল, ইসলামী আন্দোলনের আবু ইউসুফ বিশ্বাস হাতপাখা ও জাকের পার্টির সাইদুজ্জামান গোলাপ ফুল প্রতীক পেয়েছেন।
বিজ্ঞাপন

আপনার মন্তব্য

Please enter your comment!
Please enter your name here