নিজস্ব প্রতিনিধি। দৈনিক শিক্ষাবার্তা:

শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পরপর ২ বারের বেশি কোনো ব্যক্তি গর্ভনিং বডি বা ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি বা সদস্য পদে থাকতে পারবে না বলে পর্যবেক্ষণ দিয়েছেন হাইকোর্ট। এ জন্য একটি নীতিমালা তৈরির বিষয় বিবেচনা করতে শিক্ষা মন্ত্রণালয় ও শিক্ষা বোর্ডকে বলা হয়েছে।শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পরপর ২ বারের বেশি কেউ ম্যানেজিং কমিটিতে থাকতে পারবে না

বিচারপতি এম. ইনায়েতুর রহিম ও বিচারপতি মো. মোস্তাফিজুর রহমান সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ মঙ্গলবার একটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ম্যানেজিং কমিটির বৈধতা সংক্রান্ত রিট খারিজ করে এই পর্যবেক্ষণ দেন। আদালতে রিটের পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী মো. হুমায়ুন কবির এবং রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল অমিত তালুকদার। এ বিষয়ে হুমায়ুন কবির দৈনিক শিক্ষাবার্তা কে বলেন, স্কুল, কলেজ ও মাদ্রাসার গর্ভনিং বডি ও ম্যানেজিং কমিটি বিধিমালা ২০০৯ এর কোথাও সভাপতি বা সদস্য কতবার হতে পারবেন সে বিষয়ে কোন সুস্পষ্ট বিধান নেই।

এ বিষয়টি নজরে আসার পর হাইকোর্ট কোনো স্কুল, কলেজ ও মাদ্রাসার গর্ভনিং বডি বা ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি বা সদস্য হিসেবে কোনো ব্যক্তি পরপর দুইবারের বেশি হতে পারবে না বলে পর্যবেক্ষণ দিয়েছেন।

মামলার বিবরণ থেকে জানা যায়, গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলার ফুলগাছা উচ্চ বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির বৈধতা চ্যালেঞ্জ করে রিট করেন অভিভাবক সদস্য নুরুল হক। রিটে একই ব্যক্তি বা ব্যক্তিগণ ২০১৪ সাল হতে বিনা প্রতিদ্বন্দিতায় একাধিকবার সভাপতি বা সদস্য নির্বাচিত হওয়ার বিষয়টি চ্যালেঞ্জ করা হয়।

মঙ্গলবার শুনানি নিয়ে পর্যবেক্ষণসহ রিট আবেদনটি খারিজ করেন হাইকোর্ট।