নারায়ণগঞ্জে করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা এক হাজার ছাড়িয়েছে। শনিবার পর্যন্ত নারায়ণগঞ্জে ৩ হাজার ১৬৮ জনের নমুনা সংগ্রহ করে ১ হাজার ১ জনের দেহে করোনার উপস্থিতি পাওয়া গেছে।নারায়ণগঞ্জে ৩ হাজার নমুনা পরীক্ষা, আক্রান্ত ১ হাজারগত ২৪ ঘণ্টায় এ জেলায় করোনায় আরও ৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৪৬ জনে। সুস্থ হয়েছেন ৪২ জন।

জেলার সিভিল সার্জন ডা. ইমতিয়াজ আহমেদ বলেন, নারায়ণগঞ্জে ৩ হাজার ১৬৮ জনের নমুনা সংগ্রহ করে এক হাজার একজনের দেহে করোনার উপস্থিতি পাওয়া গেছে। আগে নারায়ণগঞ্জ থেকে নমুনা সংগ্রহ করে আইইডিসিআর-এ পাঠানো হতো। এখন নারায়ণগঞ্জেই নমুনা পরীক্ষার ব্যবস্থা করা হয়েছে। ফলে এখন জেলা থেকেই করোনার ফলাফল পাওয়া যাবে।

এ দিকে করোনা ভাইরাস সংক্রমণে নারায়ণগঞ্জে সবচেয়ে বেশি আক্রান্ত হয়েছেন সিটি করপোরেশন এলাকার মানুষ। ঘনবসতিপূর্ণ নাসিক এলাকাতেই আক্রান্তের সংখ্যা ৬১৭ জন। সবচেয়ে কম আক্রান্ত এলাকা হচ্ছে রূপগঞ্জ উপজেলা। রূপগঞ্জে আক্রান্তের সংখ্যা মাত্র ১৩ জন। সংক্রমণের দিক থেকে জেলায় দ্বিতীয় অবস্থানে রয়েছে সদর উপজেলায় (ফতুল্লা)। এখানে আক্রান্তের সংখ্যা ২৯০ জন।

করোনা আক্রান্তদের সংখ্যা বিশ্লেষণ করে দেখা গেছে, নারায়ণগঞ্জের সিটি করপোরেশন এলাকা এবং সদর উপজেলার ফতুল্লা থানা এলাকা শিল্পাঞ্চল এবং ঘনবসতিপূর্ণ এলাকা। এসব এলাকায় সংক্রমণের সংখ্যাও বেশি। পাশাপাশি যেসব উপজেলা কম ঘনবসতিপূর্ণ ওইসব উপজেলায় সংক্রমণের সংখ্যা কম। কম সংক্রমণের দিক থেকে বন্দর উপজেলায় ২২ জন, আড়াইহাজারে ২৭ জন এবং সোনারগাঁয়ে ৩২ জন করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here